খৈয়াছড়া ঝর্ণা পরিচ্ছন্নতা অভিযানের মধ্যদিয়ে নববর্ষ উদযাপন রুহেলের

খৈয়াছড়া ঝর্ণা পরিচ্ছন্নতা অভিযানের মধ্যদিয়ে নববর্ষ উদযাপন রুহেলের

নিজস্ব প্রতিবেদক :::

হাতে বস্তা, কাধে গামছা আর খালি পায়ে ঝর্ণার উচু নিচু দুর্গম পথ পাড়ি দিয়ে ময়লা খুঁজে বেড়াচ্ছেন তিনি। অনেকের কাছে বিষয়টি অবিশ্বাস্যও লাগছিল, কারণ এয়ার কন্ডিশন ছেড়ে রোদে পুড়ে ঝর্ণায় পরিচ্ছন্নতা অভিযান চালাবেন তিনি! বলছি মিরসরাইয়ের সাংসদ, সাবেক গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন এমপি’র পুত্র চট্টগ্রাম উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার মাহবুব রহমান রুহেলের কথা।

সম্পূর্ণ ব্যতিক্রমীভাবে এবারের বাংলা নববর্ষ উদযাপন করলেন রুহেল, সাথে ছিল স্কুল ছাত্র, স্থানীয় একঝাঁক উদ্যমী তরুণ। যখন সবাই পান্তা ইলিশ আর মঙ্গল শোভাযাত্রায় ব্যস্ত ঠিক তখনই রবিবার (১৪ এপ্রিল) সকাল ৮ টায় তিনি নেমে পড়েন ঝর্ণার রাণীখ্যাত দেশের বৃহত্তম ১০ স্টেপের ঝর্ণা খৈয়াছড়ায় পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযানে। উপজেলার ১২ নম্বর খৈয়াছড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাহেদ ইকবাল চৌধুরীর আয়োজেনে চেয়ারম্যান বাংলো থেকে খৈয়াছড়া ঝর্ণা পর্যন্ত প্রায় ১ কিলোমিটার দূরত্বের অভিযানে রুহেলের নেতৃত্বে অংশ নেন উদ্যমী তরুণ রিয়াজ বিন আলী, জাফর ইকবাল নাহিদ, একরামুল হক সোহেল, মাসুদ করিম রানা, মহি উদ্দিন মহিন, আব্দুল কাইয়ুম মিঠুন, আসিফ নিজামি সৈকত ও খৈয়াছরা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযানে অংশ নেয়া রিয়াজ বিন আলী জানান, নববর্ষের প্রথম দিনে দেশকে পরিচ্ছন্নভাবে সাজিয়ে তুলতে সচেতনতামূলক কর্মসূচির অংশ হিসেবে একদল তরুণকে নিয়ে তারুণ্যের আইকন ইঞ্জিনিয়ার মাহবুব রহমান রুহেলের নেতৃত্বে খৈয়াছড়া ঝর্ণায় পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচি চালানো হয়। এসময় প্রায় ১০০ কেজি প্লাস্টিকসহ আবর্জনা সংগ্রহ করা হয়। এই ব্যতিক্রমী উদ্যোগের ফলে তরুণরা উৎসাহিত হয়ে প্রত্যেকে যার যার আশপাশ পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখবে বলে আমি বিশ্বাসী।

তিনি আরো জানান, পরিচ্ছন্নতা অভিযানের সময় মাহবুব রহমান রুহেল ঘোষণা দেন যে, খৈয়াছড়া ঝর্ণার জন্য টুরিস্ট গাইড নিয়োগ দেবেন এবং ঝর্ণা এলাকায় যেসব দোকান রয়েছে সেখানে ডাস্টবিন স্থাপন করবেন। এই ঝর্ণাকে আরো সৌন্দর্যমন্ডিত ও পরিচ্ছন্ন করে তুলতে তিনি ভবিষ্যতে আরো বেশকিছু পদক্ষেপ নেবেন।

মাহবুব রহমান রুহেল অনুভূতি ব্যক্ত করে বলেন, অতীতের গ্লানি ও ব্যর্থতাকে ভুলে নতুন দিনের স্বপ্নে এবং মানবিক বাংলাদেশের লক্ষ্যে বাংলা নববর্ষ ১৪২৬ কে স্বাগত জানাই। আমাদের অগোচরে আমরা প্লাস্টিক বর্জ্যে দেশে শত শত টন আবর্জনা তৈরি করছি যা আমাদের পরিবেশ, প্রতিবেশকে বিপন্ন করে তুলছে। মিরসরাইয়ের তরুণদের নিয়ে নৈসর্গিক সৌন্দর্যের তীর্থস্থান ‘খৈয়াছরা ঝর্ণা’ পরিষ্কার অভিযানের মধ্যদিয়ে পহেলা বৈশাখ উদযাপন করতে পেরে আমার কাছে খুবই ভালো লেগেছে। আসুন সবাই একসাথে পরিবেশবান্ধব এবং সুন্দর বাংলাদেশ গড়ে তুলি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!