মিরসরাই ও বারইয়ারহাট পৌরসভায় কর্মবিরতিতে সেবাবঞ্চিত পৌরবাসী

মিরসরাই ও বারইয়ারহাট পৌরসভায়   কর্মবিরতিতে সেবাবঞ্চিত পৌরবাসী

নিজস্ব প্রতিবেদক :::

সরকারী কোষাগার থেকে বেতন ও পেনশন সুবিধার দাবীতে লাগাতার কর্মবিরতিতে সেবাবঞ্চিত হচ্ছে মিরসরাই ও বারইয়ারহাট পৌরবাসী নাগরিকগণ। গত ১৪ জুলাই থেকে পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির ফলে পৌরসভা থেকে কাঙ্খিত সেবা পাচ্ছে না পৌরসভায় আগত জনগণ।
বুধবার (১৭ জুলাই) সকালে মিরসরাই ও বারইয়ারহাট পৌরসভা কার্যালয়ে গিয়ে দেখা যায় পৌরসভার প্রধান ফটক ও বিভিন্ন দপ্তরের দরজায় তালা ঝুলছে। পৌরসভা থেকে নাগরিক সুবিধা নিতে এসে কোন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে না পেয়ে হতাশ হয়ে ফিরে যাচ্ছেন সেবা প্রত্যাশীরা। পৌরসভার দেওয়ালে নোটিশ আকারে টাঙ্গিয়ে দেওয়া হয়েছে সরকারী ভাবে রাজস্ব থেকে বেতন ভাতা ও পেনশন সুবিধা না দিলে অনির্দিষ্টকাল কর্মবিরতি চলবে।
বারইয়ারহাট পৌরসভায় নাগরিক সুবিধা নিতে আসা তোফায়েল আহমেদ জানান, জরুরী প্রয়োজনে নাগরিক সনদ নেওয়ার জন্য পৌসভায় এসেছি। এখানে দেখি কোন কর্মকর্তা-কর্মচারী নেই। অফিস কবে খুলবে তাও জানি না।
মিরসরাই পৌরসভার সচিব সমর কান্তি চাকমা মুঠোফোনে বলেন, সরকারী ভাবে রাজস্ব থেকে বেতন ভাতা ও পেনশন সুবিধার দাবীতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সারা দেশের পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের অবস্থান কর্মসূচী চলছে। সরকারীভাবে রাজস্ব থেকে বেতন ভাতা ও পেনশন সুবিধা দেওয়ার ঘোষণা না আসা পর্যন্ত আমাদের কর্মবিরতি চলবে। তিনি আরো বলেন, গত ১ জুলাই মিরসরাই পৌরসভায় কর্মবিরতি দিয়ে কর্মসূচী শুরু হয়। ২ জুলাই চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়। আর ১৪ জুলাই থেকে জাতীয়ভাবে ঢাকা প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান কর্মসূচী চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!